অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মস্কো ডনবাসের চাইতে বেশি অঞ্চল চায়ঃ রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী


রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের প্রেস সার্ভিসের প্রকাশিত এই ছবিতে রুশ সৈন্যদের ইউক্রেনের একটি অজ্ঞাত স্থানে তাদের অবস্থান থেকে মর্টার নিক্ষেপ করতে দেখা যাচ্ছে। ২০ জুলাই, ২০২২।

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরফ বুধবার বলেছেন, মস্কো পূর্ব ডনবাস অঞ্চলের বাইরে দক্ষিণ ইউক্রেনের আরও অঞ্চল দখল করতে চায়। নিয়ন্ত্রণের জন্য বর্তমানে সেখানে তারা ইউক্রেনীয় বাহিনীর সাথে লড়াই করছে।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেন্সকি সরকারের পতন ঘটাতে বা ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ দখল করতে ৫ মাসের আক্রমণের প্রাথমিক পর্যায়ে রাশিয়া ব্যর্থ হয়েছে। তবে লাভরফ রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমের সাথে একটি নতুন সাক্ষাৎকারে বলেছেন, রাশিয়া আর ডনবাসে লড়াই করতে বাধা বোধ করে না। সেখানে রুশ বিচ্ছিন্নবাদীরা রাশিয়া ক্রাইমিয়া উপদ্বীপ দখল করার সময় থেকে অর্থাৎ ২০১৪ সাল থেকে ইউক্রেনের সেনাদের সাথে লড়াই করছে।

রাশিয়া সম্প্রতি ডনবাসের লুহানস্ক প্রদেশের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে এবং প্রতিবেশী ডনেটস্ক প্রদেশের দখল নেয়ার জন্য লড়াই করছে।

কিন্তু লাভরফ রাষ্ট্রীয় আরটি টেলিভিশন এবং আরআইএ নভোস্তি সংবাদ সংস্থাকে বলেছেন, “এখন ভূগোল বদলে গেছে। এটি শুধু ডনেটস্ক এবং লুহানস্ক নয়, এটি খেরসন, জাপোরিজিয়া এবং আরও কয়েকটি অঞ্চল। এই প্রক্রিয়া অব্যাহত, ধারাবাহিক এবং অবিরামভাবে চলছে।”

যুক্তরাষ্ট্রের সরবরাহকৃত হাইমার্স মাল্টিপল রকেট লঞ্চার ব্যবহার করে ইউক্রেন খেরসন অঞ্চলের নিপার নদীর উপর একটি কৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ সেতুতে আক্রমণ করছে।

মঙ্গলবার হোয়াইট হাউজের জাতীয় নিরাপত্তা মুখপাত্র জন কারবি সাংবাদিকদের বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দারা ইঙ্গিত দিয়েছে যে, রাশিয়া “ইউক্রেনের সার্বভৌমত্বের সরাসরি লঙ্ঘন করে তাদের নিয়ন্ত্রণে থাকা ইউক্রেনের ভূখণ্ডকে সংযুক্ত করার ভিত্তি স্থাপন করছে।”

এ প্রতিবেদনের কিছু তথ্য এপি, এএফপি এবং রয়টার্স থেকে নেয়া হয়েছে।

XS
SM
MD
LG