অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

আইএমএফের ঋণ নিশ্চিত করতে যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা চেয়েছে পাকিস্তানের সেনাপ্রধান


পাকিস্তানের জাতীয় দিবস উপলক্ষে, রাজধানী ইসলামাবাদে এক সামরিক কুচকাওয়াজে যোগ দিতে এসেছেন পাকিস্তানের সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া, ২৩ মার্চ ২০২২।

আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) একটি ঋণ দ্রুত ছাড় করা নিশ্চিত করতে, পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর প্রধান যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা চেয়েছেন বলে খবর পাওয়া গিয়েছে। জ্বালানী আমদানির উচ্চমূল্যের কারণে আর্থিক চাপে থাকা দক্ষিণ এশিয়ার এই দেশটি দায় পরিশোধের সংকটের মুখোমুখি হয়ে রয়েছে।

জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া টেলিফোনে যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়েন্ডি শেরম্যানের সাথে এই সপ্তাহের শুরুর দিকে আলাপকালে ঐ বিষয়টি উত্থাপন করেন। পরিচয় গোপন রাখার শর্তে, একাধিক সরকারি সূত্র ভিওএ-কে শুক্রবার দিনের শেষদিকে এমন তথ্য জানিয়েছে।

কয়েকশ’ কোটি ডলারের একটি উদ্ধার প্যাকেজ পুনরুজ্জীবিত করার বিষয়ে আইএমএফের সাথে পাকিস্তান গত সপ্তাহে একটি কর্মকর্তা পর্যায়ের সমঝোতায় পৌঁছায়। তবে, ঋণদাতা সংস্থার বোর্ডের অনুমোদন সাপেক্ষেই চুক্তিটি বাস্তবায়ন হবে। আগস্টের শেষ দিকেএই বোর্ডসভা হওয়ার কথা রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, ঋণ কর্মসূচিটির আওতায় ইসলামাবাদ ৪২০ কোটি ডলার পাবে। এর মধ্যে, প্রাথমিকভাবে ১২০ কোটি ডলার প্রদান করার কথা রয়েছে।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের মুখপাত্র আসিম ইফতিখার আহমেদ, বাজওয়া ও শেরম্যানের মধ্যকার ফোনালাপের বিষয়টি নিশ্চিত করলেও বিস্তারিত কোন তথ্য জানাননি।

ইসলামাবাদে অনুষ্ঠিত সাপ্তাহিক এক সংবাদ সম্মেলনে আসিম ইফতিখার আহমেদ বলেন, “ আচ্ছা, আমি যতদূর জানি যে, আলাপটি হয়েছে, তবে এই পর্যায়ে আলোচনার বিষয়বস্তুর বিষয়ে আমি সরাসরি অবহিত নই।”

ওয়াশিংটনে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের এক মুখপাত্র, এমন আলাপ হয়েছে কি-না, তা সরাসরি নিশ্চিত করেননি।

ঐ মুখপাত্র ভিওএ-কে বলেন, “ বিস্তর বিষয় নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা নিয়মিতভাবে পাকিস্তানের কর্মকর্তাদের সাথে আলাপ করেন। নিয়ম অনুযায়ী, আমরা ব্যক্তিগত কূটনৈতিক আলোচনার নির্দিষ্ট কোন বিষয় নিয়ে মন্তব্য করি না।”

XS
SM
MD
LG