অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পাকিস্তানের উচ্চপদস্থ জেনারেল ও আরও ৫ জন হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় নিহত, বলছে সামরিক বাহিনী


পাকিস্তানের করাচিতে ভারী বৃষ্টির পরে লোকজন একটি প্লাবিত রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাচ্ছে। ২৫ জুলাই, ২০২২। ফাইল ছবি।

মঙ্গলবার পাকিস্তান বলেছে, উদ্ধারকারী দলগুলো একটি সামরিক হেলিকপ্টারের ধ্বংসাবশেষ খুঁজে পেয়েছে। হেলিকপ্টারটি বন্যা কবলিত দক্ষিণ-পশ্চিম বেলুচিস্তান প্রদেশে খারাপ আবহাওয়ার কারণে রাতারাতি বিধ্বস্ত হয়েছিল এবং তাতে থাকা ৬ জন উচ্চপদস্থ অফিসারের মৃত্যু হয়েছে।

এক সামরিক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, নিহতদের মধ্যে একজন আঞ্চলিক কোর কমান্ডার জেনারেল সরফরাজ আলী, একজন মেজর জেনারেল এবং একজন ব্রিগেডিয়ার রয়েছেন।

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, আলী এবং তার দল প্রাদেশিক রাজধানী কোয়েটা থেকে প্রায় ৫শ কিলোমিটার দক্ষিণে লাসবেলা জেলায় বন্যা ত্রাণ কার্যক্রম তদারকি করছিলেন। সে সময় অর্থাৎ সোমবার বিকেলে এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলের সাথে তাদের হেলিকপ্টারটির যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

দুর্ঘটনার বিস্তারিত তদন্তের পরে আরও তথ্য জানানোর প্রতিশ্রুতি দিয়ে বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “প্রাথমিক অনুসন্ধান অনুসারে, বৈরি আবহাওয়ার কারণে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে।”

পাকিস্তানের ন্যাশনাল ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট অথরিটি (এনডিএমএ) অনুসারে, বর্ষায় এই সপ্তাহের অস্বাভাবিক ভারী মৌসুমি বৃষ্টি এবং পরবর্তী বন্যায় বহু মানুষ মারা গেছে এবং বেলুচিস্তান জুড়ে হাজার হাজার ঘরবাড়ি ধ্বংস হয়েছে।

এই ধ্বংসযজ্ঞের ফলে সামরিক ও নৌবাহিনী ওই প্রদেশে বেসামরিক ত্রাণ কার্যক্রমে সহায়তা করার জন্য তাদের কর্মী ও প্রয়োজনীয় জিনিস নিয়োগ করে হাজার হাজার মানুষকে উদ্ধার করেছে এবং ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোকে খাদ্য ও প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র সরবরাহ করছে।

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, জুন থেকে সারাদেশে বৃষ্টিজনিত ঘটনায় মৃতের সংখ্যা ৫শ-র কাছাকাছি পৌঁছেছে। সাধারণত জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পাকিস্তানে মৌসুমী বৃষ্টি হয়ে থাকে।

XS
SM
MD
LG