অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বিমান হামলায় অপহরণকারী চক্রের ৫৫ সদস্য নিহত, জানিয়েছে নাইজেরীয় কর্তৃপক্ষ


নাইজেরিয়ার সৈন্যরা উত্তর মধ্য নাইজেরিয়ায় একটি অভিযানের সময় দস্যুদের কাছ থেকে উদ্ধার করা ছোট অস্ত্র এবং হালকা অস্ত্রের তালিকা নেয়৷ ২১শে এপ্রিল, ২০২২।

নাইজেরিয়ার বিমান বাহিনী বলেছে যে এই সপ্তাহে বিমান হামলায় অপরাধী চক্রের ৫৫ জন সদস্য নিহত হয়েছে যারা অপহরণ মুক্তিপণের জন্য অপহরণ অভিযানে জড়িত ছিল। বিমান বাহিনীর একজন মুখপাত্র বলেছেন, বিমান হামলার পর জঙ্গিরা জিম্মি করে রাখা লোকজনকে ছেড়ে দিয়েছে।

গণ অপহরণ ও ইসলামি জঙ্গি হামলা বন্ধ করতে ব্যর্থ হওয়ায় নাইজেরিয়ার সরকার ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছে।

নাইজেরিয়ার বিমান বাহিনী বলেছে যে মঙ্গলবার উত্তর মধ্যাঞ্চলের কাদুনা রাজ্যে বিমান হামলায় ঐ চক্রের নেতাসহ অপহরণকারী চক্রটির ২৮ জন সদস্য নিহত হয়েছে। এতে আরো অনেকে আহত হয়েছেন বলে জানানো হয়েছে।

বিমান বাহিনীর জনসংযোগ পরিচালক গ্যাব্রিয়েল গ্যাবকুয়েট সংবাদদাতাদের বলেছেন যে কর্তৃপক্ষ গোয়েন্দা তথ্য পেয়েছিল যে দস্যুরা এলাকায় জড়ো হচ্ছে। তিনি বলেন, অভিযানের সফলতার ফলে তাদের হাতে আটকে রাখা বন্দিদের মুক্তি দেওয়া হয়েছে।

গ্যাবকুয়েট বলেন, এই সপ্তাহে উত্তর-পশ্চিম কাটসিনা রাজ্যে অন্যান্য বিমান হামলায় ২৭ জন দস্যু নিহত হয়েছে।

ভয়েস অফ আমেরিকা আরও মন্তব্যের জন্য ফোন করলে তিনি সে ফোন ধরেননি।

নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুহাম্মাদু বুহারি একটি জাতীয় নিরাপত্তা সভায় সভাপতিত্ব করার এক সপ্তাহ পরে এই বিমান হামলা চালানো হয়। তিনি তখন বলেছিলেন যে সন্ত্রাসীদের মোকাবেলা করতে তিনি নিরাপত্তা বাহিনীকে পূর্ণ স্বাধীনতা দিয়েছেন।

নাইজেরিয়ার ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজের অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডার্লিংটন আবদুল্লাহি বলেছেন, বুহারির কথাগুলো সৈন্যদের মনোবল বাড়িয়ে তুলেছে।

XS
SM
MD
LG