অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পাকিস্তানে ইমরান খানের ভাষণ সরাসরি সম্প্রচার নিষিদ্ধ, সন্ত্রাসের অভিযোগ


ফাইল ছবি- পাকিস্তানের ইসলামাবাদে রয়টার্সের সাথে এক সাক্ষাৎকারে কথা বলছেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান, ৪ জুন ২০২১।

সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বক্তব্য সরাসরি সম্প্রচার নিষিদ্ধ করেছে পাকিস্তান। আর, সন্ত্রাসের অভিযোগে তাকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে সাথেই সমালোচকরা এটিকে “দমনমূলক রাজনীতি” হিসেবে আখ্যায়িত করে নিন্দা জানিয়েছেন।

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে এক বড় জনসমাবেশে ভাষণ দেওয়ার কয়েকঘন্টা পর, পাকিস্তান ইলেকট্রনিক মিডিয়া রেগুলেটরি অথরিটি (পিইএমআরএ বা পেমরা) দেশটির টেলিভিশন চ্যানেলগুলোর প্রতি আদেশ জারি করে, তারা যেন ভবিষ্যতে ইমরান খানের ভাষণগুলো সরাসরি সম্প্রচার না করে। তবে কেবল ইমরান খানের ধারণকৃত বক্তব্যগুলো সম্প্রচারের অনুমতি দেয়া হয়েছে।

পেমরা তাদের বিবৃতিতে বলে যে, বিরোধীদলীয় এই নেতা “ভিত্তিহীন অভিযোগ করছেন এবং রাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠান ও কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দেওয়া তার বক্তব্যের মাধ্যমে বিদ্বেষ” ছড়াচ্ছেন।

শনিবার ইমরান খান ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তা ও এক নারী বিচারকের বিরুদ্ধে মামলা করার বিষয়ে তার সংকল্পের কথা জানালে, সেটির প্রতিক্রিয়ায় এমন বিবৃতি দেয় পেমরা। খানের ঘনিষ্ঠ সহকারি, শেহবাজ গিলকে আটকের পর তাকে নির্যাতন করার অভিযোগে পুলিশ ও ঐ বিচারকের ভূমিকা রয়েছে বলে উল্লেখ করেন ইমরান খান।

গিলকে নির্যাতনের অভিযোগ অস্বীকার করে, রবিবার ইসলামাবাদে এক সংবাদ সম্মেলনে পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রানা সানাউল্লাহ বলেন, “আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে পূর্ণ দায়িত্ব নিয়ে নিশ্চিত করতে পারি যে পুলিশী হেফাজতে থাকাকালীন গিলকে কোন নির্যাতন করা হয়নি।”

এদিকে ইসলামাবাদের পার্শ্ববর্তী, সামরিক শহর রাওয়ালপিন্ডিতে ইমরান খান আরেকটি বড় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন। সেখানে তিনি আবারও তার সমালোচনাগুলো তুলে ধরেন। তবে, সেই ভাষণটি সরাসরি সম্প্রচার করা হয়নি এবং অভিযোগ উঠে আসে যে, ভাষণটির প্রচার ব্যাহত করতে পাকিস্তানের কর্তৃপক্ষ সেখানে ইউটিউবও বন্ধ করে দেয়।

ইউটিউব বন্ধ করার পেছনে সরকারের ভূমিকার অভিযোগের বিষয়ে সরকারের পক্ষ থেকে কোন জবাব দেয়া হয়নি।

তবে, ইন্টারনেট পরিষেবায় বিঘ্নতা পর্যবেক্ষণকারী, লন্ডনভিত্তিক প্রতিষ্ঠান নেটব্লকস নিশ্চিত করেছে যে, রবিবার পাকিস্তানের একাধিক ইন্টারনেট সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের সংযোগগুলোতে ইউটিউবের প্রচারে বিঘ্ন ঘটে। সংস্থাটি জানায় যে ইমরান খান জনগণের উদ্দেশ্যে সরাসরি সম্প্রচার চালানোর সময়েই ঐ বিঘ্ন ঘটে।

এদিকে, রবিবার ফেডারেল পুলিশ সন্ত্রাসবিরোধী আইনে ইমরান খানকে আটক করেছে। তারা অভিযোগ করে যে, তার আগের দিন খান পুলিশ কর্মকর্তাসহ এক নারী বিচারককে তার ভাষণের মাধ্যমে “ভীতি প্রদর্শন ও হুমকি প্রদান” করেছেন।

XS
SM
MD
LG