অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রুশ-অধিকৃত পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ইউক্রেনে বিদ্যুৎ সরবরাহ পুনরায় শুরু


একজন রাশিয়ান সেনা রাশিয়ার সামরিক নিয়ন্ত্রণের অধীনে জাপোরিঝিয়া অঞ্চলে পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের একটি এলাকা পাহারা দিচ্ছেন। ১ মে, ২০২২।

রাষ্ট্রীয় পারমাণবিক কোম্পানি এনারগোঅটম বলেছে, রাশিয়ার অধীনে থাকা জাপোরিঝিয়া পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি শুক্রবার ইউক্রেনে বিদ্যুৎ সরবরাহ পুনরায় শুরু করেছে। এর আগে এই কেন্দ্রের ছয়টি চুল্লির মধ্যে একটি ইউক্রেনীয় গ্রিডের সাথে পুনরায় সংযুক্ত হয়েছে।

কিয়েভ এর পক্ষ থেকে আগে বলা হয়েছিল, দক্ষিণ ইউক্রেনে অবস্থিত ইউরোপের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের সংযোগ বৃহস্পতিবার ইউক্রেনীয় গ্রিড থেকে বিচ্ছিন্ন করা হয়েছিল যা এই কেন্দ্রের ইতিহাসে প্রথম। গোলাগুলির কারণে একটি বিদ্যুৎ লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পরে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছিল ।

এনারগোঅটম শুক্রবার এক বিবৃতিতে বলেছে, "জাপোরিঝিয়া পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি গ্রিডের সাথে সংযুক্ত এবং ইউক্রেনের প্রয়োজনে বিদ্যুৎ উৎপাদন করছে"।

কর্তৃপক্ষ শুক্রবার বিকিরণ ফাঁসের ঘটনাতে পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের আশেপাশের বাসিন্দাদের আয়োডিন ট্যাবলেট সরবরাহ করা শুরু করে, কারণ প্লান্টের চারপাশে লড়াইয়ের কারণে একটি বিপর্যয় ঘটতে পারে বলে আশঙ্কা বাড়ছে ৷

আয়োডিন ট্যাবলেটগুলি থাইরয়েড গ্রন্থি দ্বারা তেজস্ক্রিয় আয়োডিনের শোষণকে ব্লক করতে সহায়তা করে এবং সেগুলি পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি থেকে প্রায় ৪৫ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত জাপোরিঝিয়া শহরের লোকেদের মধ্যে বিতরণ করা হয়েছিল।

ট্রান্সমিশন লাইনে আগুনে ক্ষতির কারণ কর্মকর্তারা বলেছেন যে কারখানাটি সাময়িকভাবে অফলাইনে যাওয়ার একদিন পরে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছিল। ঘটনাটি ১৯৮৬ সালের চেরনোবিলে বিস্ফোরণ দ্বারা পীড়িত একটি দেশে পারমাণবিক বিপর্যয়ের ভয়কে আরও বাড়িয়ে তোলে।

XS
SM
MD
LG