অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশের পঞ্চগড়ে করতোয়া নদীতে নৌকাডুবি: নিহত ২৪, নিখোঁজ অন্তত ৫০ জন


দুর্ঘটনার পর, ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিটের কর্মীরা উদ্ধার অভিযান শুরু করেন।

বাংলাদেশের পঞ্চগড় জেলার বোদা উপজেলার মাড়েয়া ইউনিয়নের আউলিয়ার ঘাট এলাকায় করতোয়া নদীতে নৌকাডুবিতে ২৪ জন নিহত হয়েছেন। এঘটনায় এখনও নিখোঁজ রয়েছেন অন্তত ৫০ জন। নিহতদের মধ্যে বেশিরভাগই শিশু ও নারী। দুর্ঘটনার পর, ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিটের কর্মীরা উদ্ধার অভিযান শুরু করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দুর্ঘটনাকবলিত নৌকাটিতে প্রায় দেড়শ’ জন যাত্রী ছিল। তবে তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের নাম-পরিচয় এখনো জানা যায়নি।

এর আগে, পঞ্চগড়ের পুলিশ সুপার এসএম সিরাজুল হুদা জানিয়েছিলেন “দুপুর আড়াইটার দিকে, মাড়েয়া ইউনিয়নের আউলিয়া ঘাট থেকে বধেশ্বর মন্দিরের দিকে যাওয়ার সময়, নারী ও শিশুসহ ৬০-৭০ জন যাত্রী বোঝাই নৌকাটি মাঝ নদীতে ডুবে যায়।”

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, জেলার বোদা উপজেলার বড়শশী ইউনিয়নের বধেশ্বর মন্দিরে (নদীর অপর পাড়ে) মহালয়া উপলক্ষে এক বিশাল ধর্মসভার আয়োজন করা হয়। এই ধর্মসভায় যোগ দিতে, জেলার বোদা ও দেবীগঞ্জ উপজেলা এবং অন্য এলাকার লোকজন ইঞ্জিন চালিত নৌকা করে সেখানে যাচ্ছিল। অতিরিক্ত যাত্রীর কারণে মাঝ নদীতে গিয়ে নৌকাটি উল্টে গিয়ে ডুবে যায়। সাঁতার জানা যাত্রীরা তীরে আসতে পারলেও, সাঁতার না জানা নারী ও শিশুরা পানিতে ডুবে যায়। তাদের চিৎকারে এলাকার লোকজন ছুটে এসে অনেককে উদ্ধার করে। এর পর তারা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়।

আহতদের উদ্ধারের পর পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতাল ও বোদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে।

বোদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. সোলেমান আলী নৌকা ডুবিতে এখন পর্যন্ত ২৪ জনের মুত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, নিহতদের মধ্যে নারী ১২ জন,শিশু আট জন এবং পুরুষ চারজন।

মৃত ব্যক্তিদের সৎকারের জন্য তাৎক্ষণিকভাবে প্রত্যেককে ২০ হাজার এবং আহতদের প্রত্যেককে ১০ হাজার করে টাকা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে জেলা প্রশাসন।

XS
SM
MD
LG