অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

৩৪০০ ইয়েমেন যুদ্ধ বন্দীদের সাথে রেড ক্রস’এর বিরল সাক্ষাৎ


ফ্যাব্রিজিও কার্বোনি, নিকটবর্তী এবং মধ্যপ্রাচ্যের জন্য আইসিআরসির আঞ্চলিক পরিচালক সুইজারল্যান্ডের গ্লিওনে ইয়েমেনের বন্দীদের বিনিময় চুক্তি বাস্তবায়নের তত্ত্বাবধায়ক কমিটির একটি বৈঠকের সমাপনী প্ল্যানারিতে যোগদানের ছবি। ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০।

রেড ক্রস বুধবার বলেছে যে তারা ইয়েমেনের আট বছরের গৃহযুদ্ধের উভয় পক্ষের হাজার হাজার বন্দীদের বিরল পরিদর্শন করেছে, এটি এমন একটি পদক্ষেপ যা প্রতিদ্বন্দ্বী পক্ষের মধ্যে বন্দী বিনিময়ের পথ প্রশস্ত করতে পারে।

মধ্যপ্রাচ্যের জন্য রেড ক্রসের ইন্টারন্যাশনাল কমিটির পরিচালক ফ্যাব্রিজিও কার্বোনি দ্য অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে বলেছেন যে সংস্থার সদস্যরা ডিসেম্বরে সৌদি আরবে ১০ দিনের সফরে একটি স্থাপনায় ৩৪০০ জনেরও বেশি ব্যক্তিকে দেখেছেন এবং অক্টোবরে ইয়েমেনের রাজধানী সানায় একটি পৃথক ভ্রমণ করেছেন। কার্বোনি জেনেভা থেকে একটি জুম কলের মাধ্যমে কথা বলেন, যেখানে তিনি রয়েছেন।

তিনি বলেন যে সংস্থার সদস্যদের প্রতিটি দেশের কিছু "গোপন এবং স্পর্শকাতর স্থানে" প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল এবং অনেক বন্দীর প্রিয়জনদেরকে তাদের অবস্থান সম্পর্কে জানাতে তারা সক্ষম হবেন।

কার্বনি বলেন, "এর অর্থ হল কর্তৃপক্ষ আমাদের উপস্থিতি স্বীকার করে এবং আমাদের উপস্থিতির মাধ্যমে পরিদর্শনের পুনরাবৃত্তি করার ক্ষমতা পাব, আমরা পরিবারগুলিকে পরিস্থিতি জানাতে পারবো।”

২০১৪ সালে ইয়েমেনের সংঘাত শুরু হয় যখন হুথি বিদ্রোহীরা পাহাড় থেকে আসে এবং রাজধানী সানা ও দেশের উত্তরের বেশিরভাগ অংশ নিয়ন্ত্রণ করে, ইয়েমেনের সরকারকে নির্বাসনে বাধ্য করে। সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট তারপরে যুক্তরাষ্ট্র এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের সমর্থনে ২০১৫ সালের মার্চ মাসে যুদ্ধে প্রবেশ করে।

সশস্ত্র সংঘাতের অবস্থান এবং ইভেন্ট ডেটা প্রজেক্ট অনুসারে, সংঘাতটি তখন থেকে বিশ্বের সবচেয়ে খারাপ মানবিক সংকটগুলির মধ্যে একটি হয়ে উঠেছে, এতে ১,৫০,০০০ জনেরও বেশি মানুষ নিহত হয়েছে। উভয় পক্ষই তাদের ধারণকৃত সংঘাত-সম্পর্কিত বন্দীদের সংখ্যা দেয়নি, তবে যুদ্ধ চলাকালীন কয়েক হাজার জনকে বন্দী করা হয়েছে বলে অনুমান করা হয়, এসবই অনেক কঠোর পরিস্থিতিতে করা হয়েছে।

XS
SM
MD
LG