অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

আগামী মাসে জাতিসংঘ সফরের আশা করছেন জেলেন্সকি


ইউক্রেনের রাষ্ট্রপতি ভলোদিমির জেলেন্সকি লেভিভে যুদ্ধে ইউক্রেনের পক্ষে নিহতদের স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন, ১১ জানুয়ারি, ২০২৩ ।

পররাষ্ট্র মন্ত্রকের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেন্সকি গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রাশিয়ার আগ্রাসনের বর্ষপূর্তির প্রাক্কালে, ১৯৩ সদস্যের সাধারণ পরিষদের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে ভাষণ দিতে জাতিসংঘ সফর করতে চান, যদি নিরাপত্তা পরিস্থিতি অনুকূল হয়।

ইউক্রেনের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী এমিন জাপারোভা শুক্রবার এপির কাছে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সতর্ক করেন, তার আসার জন্য অনেকগুলো বিষয় সুনির্দিষ্ট হতে হবে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হিসেবে তিনি যুদ্ধক্ষেত্রের পরিস্থিতির কথা উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, 'আমাদের প্রেসিডেন্ট আসতে চাইছেন, তার আসার ইচ্ছা আছে, কিন্তু তাঁর আসার মতো সেরকম নিরাপত্তা পরিস্থিতি তৈরি হবে কি না, তা এখনো প্রশ্নবিদ্ধ।“

ইউক্রেনের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের এক মুখপাত্র শনিবার এক ফেসবুক বিবৃতিতে বলেন, এ ধরনের সফর আসলেই হবে কি না সে বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। ওলেগ নিকোলেংকো বলেন, "ইউক্রেনের পরিস্থিতি এবং অন্যান্য কারণের উপর নির্ভর করে জেলেন্সকি বিদেশ সফর করেন।" রাষ্ট্রপতির বিদেশ সফরের পরিকল্পনা সম্পর্কে "জনগণকে সঠিকভাবে অবহিত রাখার" প্রতিশ্রুতি দেন তিনি।

জেলেন্সকি যদি জাতিসংঘে আসেন, তাহলে আগ্রাসনের পর ইউক্রেনের বাইরে এটি হবে তার দ্বিতীয় সফর। রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধে তার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সমর্থক প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং কংগ্রেসের সদস্যদের সাথে দেখা করতে তিনি ২১ ডিসেম্বর ওয়াশিংটনে আকস্মিক সফর করেছিলেন। তিনি তাদের সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন , "সমস্ত প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে" ইউক্রেন এখনও দাঁড়িয়ে আছে।

জাতিসংঘে নিযুক্ত ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত সের্গি কিসলিৎসিয়া বলেন, সাধারণ পরিষদ ইতোমধ্যে ২৩ ফেব্রুয়ারি যুদ্ধ নিয়ে একটি উচ্চ পর্যায়ের বিতর্কের দিন ধার্য করেছে। ২৪ ফেব্রুয়ারি নিরাপত্তা পরিষদের মন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

XS
SM
MD
LG