অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

হারিয়ে দেওয়ার নির্বাচনে আর যাচ্ছি না: মির্জা ফখরুল


বাংলাদেশের ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি কার্যালয়ের সামনে অসহায় ও দুস্থদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ২১ জানুয়ারি, ২০২৩।

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, “আপনারা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দেখেছেন, কেউ কি ভোট দিতে পেরেছিল, তারা নিজেরাই ভোট দিয়েছে। এবার আমরা ঠিক করছি, হারিয়ে দেওয়ার নির্বাচনে আমরা আর যাচ্ছি না। পাবলিক যাকে ভোট দিবে সে নির্বাচিত হবে।”

শনিবার (২১ জানুয়ারি) ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি কার্যালয়ের সামনে অসহায় ও দুস্থদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল এ কথা বলেন। তিনি বলেন,“সরকারের গণতন্ত্র হচ্ছে লুট করার গণতন্ত্র, টাকা পাচার করবার গণতন্ত্র, মানুষকে হত্যা করার গণতন্ত্র।”

বিএনপি মহাসচিব বলেন, “প্রতিটি দ্রব্যের দাম বাড়ছে। তেলের দাম, গ্যাসের দাম বাড়ছে। তেল ও গ্যাস এর দাম বাড়লে সবকিছুর দাম বাড়তে থাকবে। বর্তমান সরকার ১৪ বছর ধরে আমাদের দেশের ওপর বসে আছে। এরা জনগণ থেকে সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। এদের সঙ্গে জনগণের কোন সম্পর্ক নেই।”

মির্জা ফখরুল বলেন, “ব্যাংক থেকে হাজার হাজার কোটি টাকা লোপাট করেছে।এর বিরুদ্ধে কেউ কথা বললেই তার বিরুদ্ধে মামলা। কেউ প্রতিবাদ করতে পারবে না, কথা বলা যাবে না, করলেই তার বিরুদ্ধে মামলা হয়।” তিনি আরও বলেন, “তারা দেশকে একটা শ্মশানে পরিণত করেছে। আমরা এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়িয়েছি।” মির্জা ফখরুল বলেন, “মানুষ আজ জেগে উঠেছে। আমার অধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য, আমার ভোট আমি দিতে চাই।”

বিএনপি মহাসচিব বলেন, “জনগণের মূল্য তাদের কাছে নেই। আমরাও নির্বাচন চাই, তবে নির্বাচনের আগে শেখ হাসিনা সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে। আমরা সকল রাজনৈতিক দলকে নিয়ে যুগপৎ আন্দোলন শুরু করেছি। সেই আন্দোলনের মধ্য দিয়ে যদি আমরা জয়লাভ করতে পারি, তাহলে আমরা একটা জাতীয় সরকার গঠন করবো। সেখানে সব দলগুলোর প্রতিনিধি থাকবে। আমরা ২৭টি প্রস্তাব দিয়েছি, সেগুলো বাস্তবায়ন করতে চাই।”

XS
SM
MD
LG