অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মিয়ানমারের জন্য রোহিঙ্গাদের শাস্তি দেওয়া উচিত নয়—বাংলাদেশে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস


বাংলাদেশে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস
বাংলাদেশে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস

বাংলাদেশে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস বলেছেন, রোহিঙ্গারা যাতে মর্যাদার সঙ্গে তাদের মাতৃভূমিতে ফিরে যেতে পারে সে জন্য মিয়ানমারের পরিস্থিতি নিশ্চিত করা সমগ্র বিশ্বের সম্মিলিত দায়িত্ব।

আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস ২০২৩ উদযাপন উপলক্ষে বৃহস্পতিবার (২১ সেপ্টেম্বর) ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে যোগ দিয়ে তিনি বলেন, “তাদের সুরক্ষিত রাখা দরকার, শিক্ষিত করা দরকার এবং তারা যেখানে বাস করছে সেখানে তাদের মর্যাদা নিশ্চিত করা দরকার”।

সাউথ এশিয়ান ইনস্টিটিউট অফ পলিসি অ্যান্ড গভর্নেন্সের সেন্টার ফর পিস স্টাডিজ (সিপিএস) এবং নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটির অফিস অফ এক্সটারনাল অ্যাফেয়ার্স (ওইএ) যৌথভাবে নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটিতে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

এবারের শান্তি দিবসের প্রতিপাদ্য শান্তির জন্য পদক্ষেপ: বৈশ্বিক লক্ষ্যের জন্য আমাদের উচ্চাকাঙ্ক্ষা।

পিটার হাস বলেন, মিয়ানমারের পদক্ষেপের জন্য রোহিঙ্গাদের শাস্তি দেওয়া উচিত নয় এবং তাদের প্রতি কোনো বৈষম্য ছাড়াই ভালো আচরণ করা উচিত।

তিনি মিয়ানমারের ওপর ক্রমাগত সম্মিলিত চাপের গুরুত্বারোপ করে বলেন, দুর্ভাগ্যজনকভাবে এই সংকটের সমাধান এত সহজ নয়।

পিটার হাস বলেন, তারা পুনর্বাসনের বিকল্পের বিষয়েও ভাবছেন, তবে এ সুযোগ খুবই সীমিত। এটি কেবলমাত্র অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় থাকা লোকদের জন্য। এ সময় তিনি গণহত্যার জন্য ব্যক্তিদের দায়ী করার গুরুত্বও তুলে ধরেন।

পিটার হাস রোহিঙ্গাদের আশ্রয় প্রদানে বাংলাদেশের উদারতার প্রশংসা করেন। তা না হলে পরিস্থিতি আরও খারাপ হতো বলে মনে করেন তিনি।

XS
SM
MD
LG