অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ব্যর্থতা ঢাকতে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির জন্য বিএনপিকে দায়ী করছে সরকার, বললেন রিজভী


বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। ফাইল ছবি।
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। ফাইল ছবি।

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করেছেন, জনগণকে বিভ্রান্ত করতে এবং ব্যর্থতা ঢাকতে, পণ্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির জন্য বিএনপিকে দায়ী করছে সরকার।

শনিবার (২৪ ফেব্রয়ারি) নয়াপল্টন কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন। বলেন, “গণভবনে শুক্রবারের সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, যারা সরকার উৎখাতের আন্দোলন করছে, তাদের দ্রব্যমূল্য বাড়ানোর কিছু কৌশল আছে।”

“ডামি নির্বাচনের মাধ্যমে গঠিত সিন্ডিকেট সরকার অদ্ভুত সব মন্তব্য করে জনগণকে বিভ্রান্ত করছে। দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে সম্পূর্ণ ব্যর্থ এই সরকার; এখন এজন্য বিএনপিকে দায়ী করছে;” রুহুল কবির রিজভী যোগ করেন।

তিনি আরো বলেন, “এ ধরনের বক্তব্যের অর্থ হলো, স্বৈরশাসন এখন বিপথগামী হয়ে গেছে। তাই ডাহা মিথ্যাচার, অসত্য, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন মন্তব্য করা ছাড়া শেখ হাসিনার আর কোনো উপায় নেই। এ সব বক্তব্য একটি অশান্ত মনের বহিঃপ্রকাশ... এজন্য তিনি মিথ্যাচারের আশ্রয় নিচ্ছেন।”

রিজভী বলেন, তবে প্রধানমন্ত্রী স্বীকার করেছেন যে দ্রব্যমূল্য সীমাহীন ভাবে বেড়েছে। “ব্যর্থতা, লুটপাট, চুরি ও অপকর্মের জন্য নির্লজ্জভাবে বিএনপিকে দোষারোপ করা তাদের (সরকারের) পুরোনো অভ্যাস;” বলেন তিনি।

যেহেতু শেখ হাসিনা সরকার প্রধান হিসেবে অসাধু ব্যবসায়ীদের নিয়ন্ত্রণ করতে পারছেন না, তাই তিনি অবৈধভাবে ক্ষমতায় থাকতে ব্যর্থতার জন্য বিএনপিকে দায়ী করে মিথ্যাচার চালাচ্ছেন। বাজার নিয়ন্ত্রণে সরকারের ন্যূনতম যোগ্যতা নেই; বলেন রুহুল কবির রিজভী।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্মমহাসচিব বলেন, সব জিনিসপত্রের আকাশছোঁয়া দামের মধ্যে সাধারণ মানুষ বেঁচে থাকার জন্য খুব কঠিন সময় পার করছে। সরকার নানা হুমকি দিলেও, বাজার নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না। মার্কেট ম্যানিপুলেটররা এখন আওয়ামী লীগকে নিয়ন্ত্রণ করছে।

প্রতিটি পণ্যের দাম যেভাবে বাড়ছে, তাতে শুধু নিম্ন আয়ের মানুষ নয়, মধ্যবিত্ত মানুষও চরম অসহায় হয়ে পড়েছে বলে উল্লেখ করেন রিজভী।

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব গুরুতর অসুস্থ হলেও কর্তৃপক্ষ তাকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দিচ্ছে না বলে অভিযোগ করেন রিজভী।

সম্প্রতি ১৫ জন বিরোধী দলীয় নেতা কারাবন্দী অবস্থায় মারা গেছেন বলে দাবি করে, অসুস্থ হাবিবের উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত পদক্ষেপ নিতে সরকারের প্রতি আহবান জানান রুহুল কবির রিজভী।

হাছান মাহমুদ: ‘বাজার কারসাজির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে সরকার’

এদিকে, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, নির্বাচনী ইশতেহারে আওয়ামী লীগ বলেছিলো দ্রব্যমূল্য ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখা একটি অগ্রাধিকার।

“সেই অগ্রাধিকার নিয়ে আমরা কাজ করছি এবং বাজারের অসাধু সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে সরকার সব রকম ব্যবস্থা নেবে;” বলেন হাছান মাহমুদ।

শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে, জাতীয় সংসদ ভবন প্রাঙ্গণে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

জাতীয় সংসদ ভবন প্রাঙ্গণে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।
জাতীয় সংসদ ভবন প্রাঙ্গণে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

ভারত থেকে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ আসছে উল্লেখ করে হাছান মাহমুদ জানান, রোজার আগেই কিছু পেঁয়াজ বাজারে ঢুকবে, আর বাজার মোটামুটি স্থিতিশীল আছে।

“অসাধু লোভাতুর বাজার সিন্ডিকেটগুলো কারণে-অকারণে, নানা অজুহাতে বিভিন্ন পণ্যের মূল্য বাড়ায়। আমরা দেখেছি, একটি কোল্ড স্টোরেজের ভেতর থেকে দেড় লাখ ডিম উদ্ধার করা হয়েছে। অতীতে পেঁয়াজের সংকট তৈরি করা হয়েছিল;” যোগ করেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

তিনি বলেন, যখন বিদেশ থেকে পেঁয়াজ আমদানি করা হলো, বাজারে পেঁয়াজ সয়লাব হয়ে গেলো, তখন স্টোরেজ থেকে জমিয়ে রাখা পচা পেঁয়াজ ফেলে দেয়া হয়েছে। “এ ধরনের সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে আমাদের সরকার সমস্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করবে;” তিনি আরো বলেন।

হাছান মাহমুদ বলেন, যারা সরকারকে টেনে নামাতে চায়, এই সিন্ডিকেটের সঙ্গে তারাও যে যুক্ত, সে কথা সঠিক। তবে বাজার মোটামুটি স্থিতিশীল আছে।

কেবল পাইকারি বিক্রেতা নয়, খুচরা বিক্রিতাদের মধ্যেও একটু বেশি মুনাফা করার প্রবণতা দেখা দিয়েছে বলে উল্লেখ করেন হাছান মাহমুদ।

দীপু মনি: ‘দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন’

অন্যদিকে, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সমাজকল্যাণমন্ত্রী দীপু মনি শনিবার (২৪ ফেব্রয়ারি) বলেছেন, দ্রব্যমূল্য মানুষের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখতে সরকারের সর্বাত্মক প্রচেষ্টা রয়েছে।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সমাজকল্যাণমন্ত্রী দীপু মনি।
আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সমাজকল্যাণমন্ত্রী দীপু মনি।

“সামনে রমজান আসছে, এই রমজানে যাতে মানুষ স্বস্তির মধ্যে থাকে, সেজন্য সরকারের চেষ্টার পাশাপাশি সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন; বলেন দীপু মনি।

দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন যেমন কাজ করবে, তেমনি ব্যবসায়ী সমিতিগুলোর সঠিকভাবে কাজ করতে হবে। তাহলে দ্রব্যমূল্য মানুষের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখা সম্ভব হবে; বলেন সমাজকল্যাণমন্ত্রী।

XS
SM
MD
LG