অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

‘দেশে রাজবন্দী নেই, যারা আছেন তারা বিএনপি কর্মী’, বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান


স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। ফাইল ছবি।
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। ফাইল ছবি।

বাংলাদেশে কোনো রাজবন্দী নেই বলে দাবি করেছেন দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। শনিবার (৯ মার্চ) পুলিশ মেমোরিয়াল ডে উপলক্ষে, পুলিশ স্টাফ কলেজে আয়োজিত অনুষ্ঠান শেষে, সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

আসাদুজ্জামান খান বলেন, “বিএনপির দাবি, তাদের হাজার হাজার কর্মী রাজবন্দী অবস্থায় রয়েছেন। আমি বলবো, দেশে রাজবন্দী বলতে কেউ নেই। আমাদের কাছে যারা বন্দী আছেন তারা বিএনপির কর্মী।”

“রাজবন্দী বলতে কেউ নেই। যারা প্রধান বিচারপতির বাসায় ভাঙচুর করেছে; যারা পুলিশ-আনসার পিটিয়ে হত্যা করেছে; নারীদের অপমান করেছে; আমরা ভিডিও ফুটেজ দেখে তাদের শনাক্ত করে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নিয়েছি; যেটা পুলিশ করছে; বলেন বাংলাদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

বিএনপি ২০১৪ সালে অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছিলো বলে উল্লেখ করেন তিনি। বলেন, অগ্নি সন্ত্রাসের মাধ্যমে নির্বাচনকে বানচালের চেষ্টা করেছে তারা। আর, ক্রমান্বয়ে তারা জনবিচ্ছিন্ন হয়েছে।

আসাদুজ্জামান খান বলেন, ইংল্যান্ডে বসে থেকে তিনি (তারেক রহমান) এদেশে তার দলের রাজনীতি নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা করছেন। “তিনি শুধু এ দেশের জনগণের নয়, তার দলের নেতা-কর্মীদেরও ভালো চান না;” আসাদুজ্জামান খান যোগ করেন।

তিনি আরো বলেন যে বিএনপি দিন দিন জনবিচ্ছিন্ন দলে পরিণত হয়েছে।

এদিকে গত ১৮ ডিসেম্বর এক সংবাদ সম্মেলনে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম দাবি করে যে১৪ সপ্তাহে ৭৯টি মামলায় ১ হাজার ২৪৯ জন বিএনপি নেতা–কর্মীকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছে।

জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম আরো বলেছে, সরকার ২৮ অক্টোবরের পর থেকে বিএনপির ২১ হাজার ৮৩৫ জন নেতা-কর্মীদের কারাগারে বন্দী করেছে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ফোরামের মহাসচিব ও বিএনপির আইনবিষয়ক সম্পাদক কায়সার কামাল।

XS
SM
MD
LG