অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ফাইজারের ভ্যাকসিন অনুমোদন দিলো বাংলাদেশ


মার্কিন কোম্পানি ফাইজার ও জার্মান প্রতিষ্ঠান বায়োএনটেকের তৈরি করোনাভাইরাসের টিকা বাংলাদেশে জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর। বৃহস্পতিবার অধিদপ্তরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। এ নিয়ে বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের মোট চারটি টিকা অনুমোদন পেল। ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি এক লাখ ৬ হাজার ডোজ টিকা বাংলাদেশ পাচ্ছে টিকার আন্তর্জাতিক প্ল্যাটফর্ম কোভ্যাক্স থেকে। জুনের শুরুর দিকে এ টিকা আসার কথা রয়েছে।
এর আগে ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউটে তৈরি অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার কোভিশিল্ড, রাশিয়ার তৈরি স্পুৎনিক-ভি এবং চীনের সিনোফার্মের টিকার অনুমোদন দেয় ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর।
সেরাম ইনস্টিটিউটের কাছ থেকে কেনা কোভিশিল্ডের প্রায় এক কোটি ডোজ ইতোমধ্যে প্রয়োগ হয়েছে। ভারত রপ্তানি বন্ধ করে দেয়ায় এই টিকার চালান আসা বন্ধ রয়েছে। এতে ১৪ লাখ মানুষের দ্বিতীয় ডোজ দেয়া অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।
রাশিয়ার কাছ থেকে স্পুৎনিক-ভি কেনার জন্য সরকারি পর্যায়ে আলোচনা চলছে। চীনা প্রতিষ্ঠান সিনোফার্মের দেড় কোটি ডোজ টিকা কিনতে বৃহস্পতিবার অনুমোদন দিয়েছে সরকারি ক্রয় কমিটি। উপহার হিসেবে চীন এই টিকার ৫ লাখ ডোজ আগেই পাঠিয়েছিল, যার প্রয়োগ ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে।


XS
SM
MD
LG