অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা পাকিস্তান সুপ্রিম কোর্টের সাম্প্রতিক একটি রায়ের কথা স্মরণ করিয়ে দিলেন


প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা পাকিস্তান সুপ্রিম কোর্টের সাম্প্রতিক একটি রায়ের কথা স্মরণ করিয়ে দিলেন। বললেন, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে অযোগ্য ঘোষণা করলেও সেখানে কোন আলোচনা-সমালোচনা হয়নি। আমাদের আরো পরিপক্কতা দরকার। রোববার বিচারিক আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাবিধি নিয়ে আপিল শুনানির সময় প্রধান বিচারপতি এই মন্তব্য করেন। প্রধান বিচারপতি এমন এক সময় এ মন্তব্য করলেন যখন ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় নিয়ে দেশে তুমুল বিতর্ক চলছে। এই রায়ে আওয়ামী লীগ হতাশ ও ক্ষুব্ধ। বিরোধী বিএনপি উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছে নানাভাবে। এ নিয়ে দু’দলের মধ্যে পাল্টাপাল্টি চলছে। ক্ষুব্ধ আওয়ামী লীগ প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদের সঙ্গে একাধিক বৈঠক করেছে। যে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী, আইনমন্ত্রী, সেতুমন্ত্রী ও এটর্নি জেনারেল উপস্থিত ছিলেন। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের প্রধান বিচারপতির সঙ্গে বৈঠক করেছেন। রায় বাতিলের দাবিতে আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ আগামী মঙ্গলবার মানববন্ধনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে।

আদালতে প্রধান বিচারপতি এটর্নি জেনারেলকে লক্ষ্য করে বলেন, বিচার বিভাগ ধৈর্য ধরেছে। যথেষ্ট ধৈর্য। যাই হোক আপনারা মিডিয়াতে গিয়ে অনেক কথা বলেন। কোর্টে এসে অন্য কথা। ঝড়তো আমরা তুলিনি। আপনারা ঝড় তুলছেন। বরং আমরা মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকছি। শুনানির শুরুতে প্রধান বিচারপতি বলেন, গত তারিখে আলাপ-আলোচনা করার কথা হয়েছিল। কিন্তু কোন কথা হয়নি। এই পর্যায়ে আদালত বিচারকদের শৃঙ্খলাবিধি গেজেট প্রকাশের জন্য ৮ই অক্টোবর দিন ধার্য করেন।

XS
SM
MD
LG