অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ভারতে ১ কোটি ৫৪ লাখ করোনা টিকা অব্যবহৃত রয়ে গেছে - স্বাস্থ্য মন্ত্রক


ভারতে কোভিশিল্ড, কোভ্যাকসিন আর রাশিয়ার স্পুটনিক টিকা ব্যবহার করা হচ্ছে
ভারতে কোভিশিল্ড, কোভ্যাকসিন আর রাশিয়ার স্পুটনিক টিকা ব্যবহার করা হচ্ছে

ভারত জুড়ে যখন করোনার প্রতিষেধকের জন্য হাহাকার চলছে, রাজ্যে রাজ্যে করোনার টিকা অমিল, ঠিক সেই সময় আজ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানালো, ১ কোটি ৫৪ লাখ করোনার টিকা এখনও অব্যবহৃত রয়ে গেছে। সেগুলো এখন দ্রুত ব্যবহারের জন্য নির্দেশ পাঠানো হচ্ছে।

ভারত জুড়ে যখন করোনার প্রতিষেধকের জন্য হাহাকার চলছে, রাজ্যে রাজ্যে করোনার টিকা অমিল, ঠিক সেই সময় আজ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানালো, ১ কোটি ৫৪ লাখ করোনার টিকা এখনও অব্যবহৃত রয়ে গেছে। সেগুলো এখন দ্রুত ব্যবহারের জন্য নির্দেশ পাঠানো হচ্ছে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানিয়েছে যে, এই টিকাগুলো বিভিন্ন রাজ্য এবং বেসরকারি হাসপাতালে দেওয়া হয়েছিল। এ পর্যন্ত ৩৮ কোটি ৮৬ লক্ষ ডোজ করোনা ভ্যাকসিন রাজ্যগুলোকে দেওয়া হয়েছে। আরো ৬৩ লক্ষ ৮৪ হাজার ডোজ বন্টন করার অপেক্ষায় রয়েছে। কিছু কিছু করোনা ভ্যাকসিন নষ্ট হয়ে গিয়েছে। তবে সেগুলো ধরে ৩৭ কোটি ৩২ লক্ষ ডোজ এখন অবধি ব্যবহৃত হয়েছে।

আপাতত ভারতে তিনটি ভ্যাকসিন, কোভিশিল্ড, কোভ্যাকসিন আর রাশিয়ার স্পুটনিক ব্যবহার করা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রের মডার্না আর ফাইজারের তৈরি ভ্যাকসিন আইনি জটিলতায় আটকে রয়েছে। কারণ, যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ কোম্পানিগুলো বলছে, তাদের এই ভ্যাকসিন দেওয়ার পর যদি কোনো মামলা হয় তবে তার দায় ভ্যাকসিন কোম্পানি নেবে না।

ভারত সরকার এই শর্তে রাজি হতে পারছে না। কারণ, অন্য আর কোনো ভ্যাকসিন কোম্পানিকেই এই সুবিধা দেওয়া হয়নি। কাজেই এই বিষয়টির এখনও ফয়সালা হচ্ছে না এবং ভারতে বিপুলসংখ্যক ভ্যাকসিনের অভাব এখনো রয়ে গিয়েছে।

XS
SM
MD
LG