অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

উত্তর ইরাকের বিমানবন্দরে ড্রোন হামলা


ইরান সমর্থিত মিলিশিয়া যোদ্ধারা মধ্য বাগদাদে মার্চের মাধ্যমে পৃষ্ঠপোষক ইরানের প্রতি আনুগত্য দেখিয়ে যুক্তরাষ্টের উপস্থিতির বিরুদ্ধে ড্রোন ও রকেট হামলা বৃদ্ধি করেছে, ফাইল ছবি, ২৯শে জুন, ২০২১, ছবি, খালিদ মুহাম্মদ/এপি


উত্তরাঞ্চলীয় ইরাকের ইরবিল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর লক্ষ্য করে শনিবার বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন হামলা চালানো হয়, যেখানে যুক্তরাষ্ট্রের সেনারা অবস্থান করছেI তবে নিরাপত্তা বাহিনী ও কুর্দি প্রশাসিত ঐ অঞ্চলের কর্মকর্তারা জানান, হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায় নি I

কুর্দিস্তানের সন্ত্রাস বিরোধী সার্ভিস এক বিবৃতিতে জানায়, বিমানবন্দর লক্ষ্য করে অন্তত দুটি ড্রোন হামলা হয়, তবে বিবৃতিতে জানানো হয় যে কেউ হামলায় হতাহত হন নি I

আধা স্বায়ত্ত শাসিত ঐ অঞ্চলের মুখপাত্র, লক গাফুরি জানান, বিমানবন্দরের বাইরে বিস্ফোরক আঘাত হানে, হামলায় বিমান চলাচল ব্যাহত হয়েছে এমন খবর তিনি নাকচ করে দেন I তিনি জানান, বিমানবন্দর খোলা আছে এবং কুর্দি কর্তৃপক্ষ ড্রোন হামলার তদন্ত শুরু করেছেন।

বাগদাদে যুক্তরাষ্ট্র সেনা উপস্থিতি এবং সামরিক ঘাঁটি লক্ষ্য করে ২ মাস ধরে ড্রোন ও রকেট হামলা শান্ত থাকার পর, প্রথম এই হামলা পরিচালিত হলো I ৮ই জুলাই, কয়েকটি রকেট রাজধানী বাগদাদের সুরক্ষিত গ্রিন জোনের ভেতরে এবং আশেপাশে আঘাত হানে I যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাস এখানেই অবস্থিতI হামলায় মালামাল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তবে কেউ মারা যায় নিI

সাম্প্রতিক সময়ের আগে, নিয়মিত হামলা পরিচালিত হতো I যুক্তরাষ্ট্র ইরান সমর্থিত জঙ্গিদের এসব হামলার জন্য দোষারোপ করেছেI তবে সাম্প্রতিক সময়ে তাদের হামলা ছিল আরো উন্নত প্রযুক্তির, যেখানে জঙ্গিরা কাটুসা রকেটের পরিবর্তে অত্যাধুনিক ড্রোন ব্যবহার করেI

যুক্তরাষ্ট্র সেনাবাহিনী, এ বছরের শেষ নাগাদ ইরাকে তাদের মিশন সমাপ্ত করবে, তবে ইরাকের সামরিক বাহিনীকে তারা প্রশিক্ষণ ও পরামর্শ দিয়ে যাবেI ইরাকে বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের ২,৫০০ সেনা অবস্থান করছে, যারা আইসিস গ্ৰুপের অবশিষ্ট্যাংশের বিরুদ্ধে যুদ্ধে স্থানীয় সেনাদের সহায়তা দিচ্ছেI

XS
SM
MD
LG