অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বিমানবন্দর  বন্ধের নির্দেশ প্রত্যাহার করেছে ভারতের ডিজিসিএ


L'aéroport de Begumpet à Hyderabad en Inde, le 15 mars 2016.

আজ ভারতীয় সময় সকালে ভারতের আকাশপথে চূড়ান্ত সতর্কতা জারি হওয়ার কারণে দেশের সমস্ত বিমানবন্দরে বিমান চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। তবে বিমানবন্দর বন্ধের নির্দেশ প্রত্যাহার করল ডিজিসি-এ।

বিমানবন্দর বন্ধের নির্দেশ প্রত্যাহার করার পরই কিছুক্ষণের মধ্যেই উড়ান চলাচল স্বাভাবিক হয় বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রের খবর। জানা গেছে নিয়ম মেনেই বিমান চলবে। আগামীকাল ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ৬০ টি উড়ান বাতিলের কথা বলা হয়েছিল। তবে এখনও পর্যন্ত জানা যাচ্ছে, ঘোষিত টাইমটেবিল মেনেই চলবে বিমান। ভারতের আকাশপথে চূড়ান্ত সতর্কতা জারি হওয়ার জেরে খানিক্ষণের জন্য দেশজুড়ে ব্যহত হয় বিমান চলাচল। এয়ার ভিস্তারা ইন্ডিগো-সহ বিভিন্ন বিমান সংস্থার তরফে নিজেদের টুইটার হ্যান্ডেলে বিমান চলাচল বন্ধের কথা জানানো হয়। অমৃতসর বিমানবন্দরেও বিমান পরিষেবা স্থগিত রাখা হয়েছিল কিছু সময়ের জন্য। প্রসঙ্গত বলা যেতে পারে আজ ভারতীয় সময় সকালের দিকে পাক সেনা কাশ্মীরের আকাশপথের সীমানা লঙ্ঘন করার পরই পরিস্থিতি ক্রমশ খারাপ হতে থাকে। নিরাপত্তার কারণে সকালেই বন্ধ করা হয়েছিল উত্তর ভারতের অধিকাংশ বিমানবন্দর। তালিকায় ছিল শ্রীনগর, জম্মু, লে, অমৃতসর, পাঠানকোট, গগ্গল, দেরাদুন ও চণ্ডীগড় বিমানবন্দর। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক উড়ানও এই এলাকাগুলিতে না নামিয়ে, ঘুরিয়ে দেশের অন্য বিমানবন্দরগুলিতে অবতরণ করানো হচ্ছিল। সবমিলিয়ে কার্যত বিপাকে পড়তে হয় যাত্রীদের। এবং আজই ভারতীয় বায়ুসেনার একটি সূত্র থেকে জানা যায়, তাদের ব্যবহারের জন্যই পাঁচটি বিমানবন্দরে অসামরিক বিমান পরিবহণ বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে। পাশাপাশি তিন মাসের জন্য বিমানবন্দরগুলি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলেও খবর আসে।

কলকাতা সংবাদদাতা পরমাসিষ ঘোষরায় জানাচ্ছেন বিস্তারিত।

please wait

No media source currently available

0:00 0:01:01 0:00

XS
SM
MD
LG