অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বেশ কিছুদিন ধরেই রাজ্যের উত্তর বঙ্গে পৃথক গোর্খাল্যান্ডের দাবিতে পাহাড়ে অনির্দিষ্টকালের বন্ধ চলছে। এরই মধ্যে সোনাদায় গুলিতে জিএনএলএফ সমর্থকের মৃত্যুকে কেন্দ্র করে আজ ফের উত্তপ্ত পাহাড়। সোনাদায় ট্রাফিক পুলিশ বুথে আগুন, থানাতে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। সোনাদা স্টেশনেও অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

এর আগে থানা ঘেরাও করে জিএনএলএফ ও মোর্চা সমর্থকদের। সোনাদা থানা লক্ষ্য করে চলে পাথরবৃষ্টি। পাল্টা বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে লাঠিচার্জ ও কাঁদানে গ্যাসের শেল ছোড়ে পুলিশ।

গতকাল রাত এগারোটা নাগাদ ওষুধের দোকান থেকে ওষুধ কিনে বাড়ি ফিরছিলেন জিএনএলএফ সমর্থক তাসি ভুটিয়া। তখনই গুলিতে মৃত্যু হয় তাঁর। জিএনএলএফ-এর দাবি, পুলিশই গুলি চালায়। যদিও এনিয়ে পুলিশের কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তবে পিটিআই সূত্রের খবর, পুলিশ আধিকারিকরা জানিয়েছেন যে, গুলি চালানোর কোনও ঘটনার খবর নেই।

জিএনএলএফের দাবি খারিজ করে পর্যটনমন্ত্রী গৌতম দেব বলেছেন, পাহাড়ে পুলিশ শান্তিপূর্ণ আচরণ করছে। এধরনের অভিযোগ ভিত্তিহীন। এদিন মৃতর দেহ নিয়ে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে মোর্চা ও জিএনএলএফ কর্মী-সমর্থকরা।

XS
SM
MD
LG