অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

কেনিয়ায় সশরীরে সরকারি পরিষেবা পেতে হলে টিকা নেয়া আবশ্যকীয় করা হচ্ছে


কেনিয়ার নাইরোবিতে অবস্থিত কেনিয়াত্তা আন্তর্জাতিক কনভেনশন সেন্টারে জনগণ প্রথম অক্সফোর্ড /অস্ত্রা জেনেকা টিকা ডোজের জন্য লাইনে দাঁড়িয়েছেন, ফাইল ছবি, ২১শে এপ্রিল, ২০২১/এএফপি

কেনিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ২১শে ডিসেম্বরের মধ্যে কভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে ভ্যাকসিন নেন নি, এমন কাউকে ব্যক্তিগতভাবে সরকারি কাজে যেতে অস্বীকার করা হবে এবং তাদেরকে জনসমাবেশ, পার্ক, হোটেল, রেস্তোরা এবং পান্থশালা বা বারে প্রবেশে অনুমতি দেয়া হবে নাI

কেনিয়ান জনগণের কভিড-১৯ এর ভ্যাকসিন নিতে এক মাসেরও কম সময় রয়েছে, অন্যথায় তারা ব্যক্তিগত সরকারি পরিষেবার অধিকার হারাবেনI

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মুতাহি কাগওয়ে বছর শেষ হওয়ার আগে ভ্যাকসিন নিতে উৎসাহিত নন এমন জনগণকে উৎসাহিত করতে এসব নতুন পদক্ষেপ ঘোষণা করেনI

তিনি বলেন, "বাদ-বাকি বিশ্ব থেকে আমাদের ইঙ্গিত নিতে হবে, জানতে হবেI সফল টিকাদান অভিযানের পরেও, নেদারল্যান্ডস, অস্ট্রিয়া, ফ্রান্স, বেলজিয়াম, যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র ও অস্ট্রেলিয়ায় মহামারী সংক্রান্ত যে চিত্র ফুটে উঠেছে, তা উদ্বেগজনক"I

কেনিয়ার সরকার জানায় এ বছরের শেষ নাগাদ অন্তত ১ কোটি লোককে টিকাদানের লক্ষ্যমাত্রা নিশ্চিত করতে এই পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছেI

টিকা কর্মসূচি গ্রহণের পর, এ যাবৎ ৬৫ লক্ষ জনগণকে টিকা দেয়া হয়েছে, যার মধ্যে কেনিয়ার ১০% প্রাপ্ত বয়স্ক লোকজন, যা মাত্র ২৪ লক্ষ, তারাই দুটো টিকা নিয়েছেনI

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মুতাহি কাগওয়ে বলেন, "এই প্রক্রিয়ার মাধ্যমে টিকা নিতে আমরা জনগণকে যথেষ্ট সময় দিচ্ছি, যাতে করে ২১ সে ডিসেম্বরের পর লোকজন পুলিশ তাদের হয়রানি করছে এমন দোষারোপ না করেন"I

নতুন পদক্ষেপের ঘোষণা, যা এখনো বাস্তবায়িত হয়নি, এমন এক সময় দেয়া হচ্ছে, যখন দেশটিতে ছুটি সম্পর্কিত ভ্রমণ ওজনসমাবেশের প্রস্তুতি চলছে এবং সেই সঙ্গে বৃদ্ধি পাচ্ছে ভাইরাস ছড়ানোর ভীতি, যে সংক্রমণের প্রবণতা সাম্প্রতিক মাসগুলিতে ছিল নিম্নমুখীI

XS
SM
MD
LG