অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন ক্ষমা করলেন সাবেক প্রেসিডেন্ট পার্ককে


ফাইল ছবি, দক্ষিণ কোরিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট পার্ক গাউন হাই ২০১৭ সালে সৌলের কেন্দ্রীয় আদালতে শুনানিতে অংশ গ্রহণ করতে আসেন, ১০ই অক্টোবর, ২০১৭, ছবি এহান ইয়ং-জুন /এপি

দক্ষিণ কোরিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট পার্ক গেউন হাই, যাঁকে ২০১৬ এবং ২০১৭ সালে দেশের ব্যাপক দুর্নীতি সংক্রান্ত কেলেঙ্কারির কারণে অভিশংসন করা হয়েছিলএবং কারাদণ্ড দেয়া হয়েছিল, তাঁর উত্তরসূরি তাঁকেক্ষমা করে দিয়েছেন ।

জাতীয় সম্প্রীতির স্বার্থে যাদেরকে বিশেষভাবে ক্ষমা করা হয়েছে, দক্ষিণ কোরিয়ার বিচার দপ্তর শুক্রবার সেই তালিকায় সাবেক প্রেসিডেন্ট পার্ককে অন্তর্ভুক্ত করে।

প্রেসিডেন্ট মুন যায় ইন এক বিবৃতিতে বলেন, “অতীতের তিক্ততা ভুলে গিয়ে আমাদের নতুন ভবিষ্যতের দিকেএগিয়ে যেতে হবে।এখন সময় হয়েছে অতীতে একে অন্যের বিবাদে না জড়িয়ে সামনে এগিয়ে চলা বাহিনীর সঙ্গে সাহসের সঙ্গে যোগ দেয়া"।

প্রেসিডেন্ট মুন বলেন, বিগত ৫ বছরের কারাবাসের কারণে পার্কের স্বাস্থ্যের অনেক অবনতি হয়েছে।

ঊনসত্তর বছর বয়সী পার্ক, যিনি ২২ বছরের কারাদণ্ড ভোগ করছিলেন, তাঁর পিঠে, কাঁধে সমস্যা দেখা দিয়েছিল এবং তিনিমানসিক রোগেও ভুগছিলেন। কারাদণ্ডের বেশির ভাগ সময়টাই তিনি হাসপাতালে কাটিয়েছেন।

ইতিমধ্যেই পার্কের শাসনামলকে নিয়েগভীরভাবে দ্বিধাবিভক্ত দক্ষিণ কোরিয়ার রাজনৈতিক অঙ্গনে,তাঁর ক্ষমা মন্জুর সুদূর প্রসারী প্রভাব ফেলতে পারে। যে বিষয়টি ৯ই মার্চের প্রেসিডেনশিয়াল নির্বাচনী প্রচারণায় গভীরভাবে প্রভাব ফেলতে পারে।

সাবেক প্রেসিডেন্ট পার্ক হচ্ছেন দক্ষিণ কোরিয়ার দীর্ঘকালীন সামরিক স্বৈরশাসক পার্ক চুং হি 'র কন্যা।১৯৭৯ সালে পার্ক চুং হিকে হত্যা করা হয়েছিল। দক্ষিণ কোরিয়ার উদারপন্থীরা, যারা ১৯৮০ সালে দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠায় প্রধান ভূমিকা রেখেছেন, পার্ক পরিবারকে ভর্ত্সনা করেন।তবে রক্ষণশীলরাএখনো সামরিক স্বৈরাচারের সমর্থনে কথা এবং দেশের দ্রুত অর্থনৈতিক সমৃদ্ধির জন্য তাদের ভূমিকার প্রশংসা করে থাকেন।

XS
SM
MD
LG