অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মিয়ানমারের রাখাইনে আরও ৫টি গণকবরের সন্ধান পাওয়া গেছে


Yanghee Lee, U.N. special envoy on human rights in Myanmar, speaks during a press conference in Seoul

মিয়ানমারের রোহিঙ্গা অধ্যুষিত রাখাইনে আরও ৫টি গণকবরের সন্ধান পাওয়ার কথা জানা গেছে। বার্তা সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস বৃহস্পতিবার প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা ২৪ জন রোহিঙ্গার সাক্ষাতকার, এদের অনেকের মোবাইল ফোনে ধারণকৃত ভিডিও চিত্র এবং স্যাটেলাইট ইমেজের বিশ্লেষণে খবর দিয়েছে, গু দার পিন গ্রামের ওই গণহত্যাকান্ডে ঠিক কতোজনকে হত্যা করা হয়েছে তা স্পষ্ট নয়-কারণ ওই গ্রামে প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ। পালিয়ে আসারা বলছেন, ২০টি শিশুসহ কমপক্ষে ৪০০ জনকে ২৭ আগস্টে হত্যা করা হয়। তাদের ভাষ্য মোতাবেক, সেনারা যে শুধু অস্ত্রশস্ত্রই ব্যবহার করেছে তা নয়, তারা এসিড দিয়ে নিহতদের শরীর ঝলসে দিয়েছে।
এদিকে, জাতিসংঘের মিয়ানমারের মানবাধিকার সংক্রান্ত বিশেষ দূত ইয়াং হি লি বলেছেন, এর আগেও গণকবরের সন্ধান পাওয়া গেছে। আরও গণকবর রয়েছে বলে অভিযোগ আছে। এসব গণকবর- গণহত্যা সংঘটনের জ্বলজ্বলে প্রমাণ।
এ ঘটনায় বাংলাদেশ কোনো প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেনি। তবে ঢাকায় বিশ্লেষকরা বলছেন, রোহিঙ্গাদের মনে এই ঘটনা আরও ভীতির জন্ম দেবে।
ঢাকা থেকে বিস্তারিত জানিয়েছেন আমীর খসরু তার রিপোর্ট।

please wait

No media source currently available

0:00 0:00:51 0:00

XS
SM
MD
LG