অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

সামরিক অভিযান বিরতির জন্য রাজি হয়েছে তুরস্ক


বৃহস্পতিবার তুরস্ক ১২০ ঘণ্টার জন্য সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে তাদের সামরিক অভিযান বিরতির জন্য রাজি হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেজেপ তায়িপ এরদোয়ানের সঙ্গে ব্যপক আলোচনার পর এই ঘোষণা করেন। পেন্স বলেন, এই বিরতি কুর্দি ওয়াইপিজি বিদ্রোহীদের তুরস্কের সঙ্গে সিরিয়ার সীমান্তে অবস্থিত ৩২ কিলোমিটার দীর্ঘ নিরাপদ অঞ্চল ত্যাগ করার সুযোগ দেবে।

পেন্স বলেন, শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করাই এই বিরতির মূল লক্ষ্য। তুরস্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তাদের মধ্যে পাঁচ ঘণ্টা আলোচনা চলে।

তবে স্থানীয় কুর্দি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, সিরিয়ার দীর্ঘ দিনের কুর্দি রাজনীতিবিদ আলদার যেলিল বলেন, আমরা আগেই জানিয়েছি যে সিরিয়ার ৩০ কিলোমিটারের ভেতরে তুরস্কের প্রবেশের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করছি। তিনি আরও বলেন বিরতির সময় হামলা হলে কুর্দিরা তাদের নিজেদের রক্ষা করতে লড়াই করবে।

মাইক পেন্স বলেন যুক্তরাষ্ট্র ও তুরস্ক ঐ অঞ্চলে শান্তি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে পারস্পরিক সম্মতিতে বৈঠকে মিলিত হয়। জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বিষয়ে দুই দেশ আলোচনা করে। বলা হচ্ছে, তুরস্ক তাদের সামরিক অভিযান শুরু করার পর এবং প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের সৈন্যদল সিরিয়ার উত্তর পূর্বাঞ্চল থেকে প্রত্যাহার করার পর ইসলামিক স্টেটের জঙ্গিরা ঐ অঞ্চল থেকে পালিয়ে যায়।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প জানান, তুরস্ক তাদের সামরিক অভিযানে বিরতি দেয়ার বিষয়ে রাজি হওয়ায়, যুক্তরাষ্ট্র আংকারার বিরুদ্ধে যেই নিষেধাজ্ঞা আরোপের পরিকল্পনা করেছিল তার আর এখন প্রয়োজন নেই।

ট্রাম্প তার টুইটারে লেখেন, 'এই চুক্তি ৩ দিন আগেও সম্ভব ছিল না। এই চুক্তি অর্জনের জন্য প্রয়োজন ছিল কিছু রাজনৈতিক নীতির প্রয়োগ। সবার জন্য ভাল হল। আমি সবার জন্য গর্বিত।'

সিরিয়ার উত্তর পূর্বাঞ্চল থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সৈন্য প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তের কারনে যুক্তরাষ্ট্রের উভয় রাজনৈতিক দল দুটির চরম সমালোচনার মুখে পড়েন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।

XS
SM
MD
LG