অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রোহিঙ্গাদের নিয়ে দীর্ঘমেয়াদি নীতিমালা গ্রহণের আহ্বান থিঙ্কট্যাঙ্ক ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইসিস গ্রুপের


রোহিঙ্গাদের নিয়ে একটি দীর্ঘমেয়াদি নীতিমালা গ্রহণের জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ব্রাসেলস ভিত্তিক থিঙ্কট্যাঙ্ক ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইসিস গ্রুপ। এছাড়া রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তরের পরিকল্পনা থেকে ঢাকার সরে আসা উচিত বলেও মনে করে সংস্থাটি। শুক্রবার প্রকাশিত সংস্থাটির এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মিয়ানমারের অন্তত ১০ লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়ে নিরাপদ অবস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করেছে বাংলাদেশ। কিন্তু একইসঙ্গে এই উদ্বাস্তু সংকটকে একটি সাময়িক সমস্যা হিসেবে চিহ্নিত করে এর সমাধানে শুধু দ্রুত প্রত্যাবাসনের দিকেই নজর দিচ্ছে দেশটি। সেটিও সফল হচ্ছে না কারণ প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া থেমে আছে। একইসঙ্গে রোহিঙ্গা শিবিরগুলোতে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে অপরাধ ও সহিংসতা। বাংলাদেশও কঠোরভাবে এটি মোকাবেলা করছে।

আগস্ট মাসে রোহিঙ্গা ও সেখানে কর্মরত এনজিওগুলোর ওপর বাধানিষেধ আরোপ করা হয়। এতে সেখানে মানবিক সাহায্য পাঠানো ও রোহিঙ্গাদের মধ্যে তা বিতরণে সমস্যা সৃষ্টি করছে। তাই বাংলাদেশের উচিত এসব আরোপিত বাধা-নিষেধ তুলে নেয়া। বিবৃতিতে বলা হয়, রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে প্রতিক্রিয়া নির্ধারণে একটি গুরুত্বপূর্ন সময় পার করছে ঢাকা। যদি বাংলাদেশ সরকার একে একটি স্বল্পমেয়াদি সংকট হিসেবে দেখে যেতে থাকে এবং নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জগুলো শক্ত হাতে মোকাবেলা করতে থাকে তাহলে এই অবস্থা আরো কঠিন ও ভয়াবহ হয়ে উঠবে। প্রত্যাবাসনের সম্ভাবনা না থাকা ও

বাংলাদেশে তাদের জন্য কোনো দীর্ঘ মেয়াদি পরিকল্পনা না থাকায় এ ধরনের অভিযান রোহিঙ্গাদের উদ্বিগ্নতা বাড়িয়ে তুলবে। এর ফলে তাদের সন্ত্রাসবাদী সংগঠনগুলোতে যুক্ত হওয়ার প্রবণতা বাড়বে যা বাংলাদেশের নিরাপত্তা ঝুঁকিকে আরো বৃদ্ধি করতে পারে। সংস্থাটি বলছে, ঢাকা স্বীকার করুক বা না করুক, লাখ লাখ রোহিঙ্গা আরো কয়েক বছর বাংলাদেশে থাকবে। এই অবস্থায় বাংলাদেশ সরকারকে রোহিঙ্গাদের জন্য দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে। একইসঙ্গে এই পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সহযোগীদের সাহায্য নিশ্চিত করতে হবে।

please wait

No media source currently available

0:00 0:01:27 0:00



XS
SM
MD
LG