অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পরীমনির মামলায় প্রধান ২ আসামির জামিন


চিত্রনায়িকা পরীমনি

ওই মামলার প্রধান অভিযুক্ত ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমি আদালতে জামিন পেলেও এখনই  কারামুক্ত হতে পারছেন না। কারণ তাদের বিরুদ্ধে বিমানবন্দর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে আরো একটি মামলা রয়েছে।

চিত্রনায়িকা পরীমনির দায়ের করা ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার মামলার প্রধান দুই আসামি জামিন পেয়েছেন।

ওই মামলার প্রধান অভিযুক্ত ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমি আদালতে জামিন পেলেও এখনই কারামুক্ত হতে পারছেন না। কারণ তাদের বিরুদ্ধে বিমানবন্দর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে আরো একটি মামলা রয়েছে।

মামলার প্রধান অভিযুক্ত ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী
মামলার প্রধান অভিযুক্ত ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী

ঢাকার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালত মঙ্গলবার ৫ হাজার টাকা মুচলেকায় তাদের অর্ন্তবর্তীকালীন জামিন মঞ্জুর করেন। আসামি পক্ষের আইনজীবী এ এইচ ইমরুল কাওছার জানিয়েছেন, এ মামলায় আগামী ৮ই জুলাই তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য আছে। ওই দিন পর্যন্ত দুই আসামিকে জামিন দিয়েছেন আদালত।

সাভার থানায় দায়ের করা মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ৫ দিনের রিমান্ড শেষে মঙ্গলবার আসামিদের আদালতে হাজির করে আটক রাখার আবেদন করেন। অন্যদিকে আসামিদের পক্ষে কয়েকজন আইনজীবী জামিন আবেদন করেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত তাদের জামিন মঞ্জুর করেন।

ধর্ষণচেষ্টা, হত্যাচেষ্টা ও মারধরের অভিযোগে গত ১৪ই জুন নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমিসহ ছয়জনক আসামি করে সাভার থানায় মামলা করেন চিত্রনায়িকা পরীমনি। মামলায় পরীমনির অভিযোগ, গত ৮ই জুন রাতে তাকে পরিকল্পিতভাবে বোট ক্লাবে নিয়ে ‘ধর্ষণের চেষ্টা’ করেন ব্যবসায়ী নাসির ইউ মাহমুদ।

পরীমনির মামলা দায়েরের পরই ঢাকার উত্তরার একটি বাসা থেকে নাসির ও অমিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পরে ১৫ই জুন মধ্যরাতে বিমানবন্দর থানায় মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে আরেকটি মামলা দায়ের করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। মাদকের মামলায় প্রথমে তাদের ৭ দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। গত ২৩শে জুন পরীমনির দায়ের করা মামলায় তাদের আরো ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।


XS
SM
MD
LG