অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রী হেনস্তা: আটক পাঁচ শিক্ষার্থীর রিমান্ড অনুমোদন


চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ছাত্রীকে হেনস্তার ঘটনায় গ্রেপ্তার হওয়া শিক্ষার্থীরা

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ছাত্রীকে হেনস্তার ঘটনায় গ্রেপ্তার হওয়া পাঁচ শিক্ষার্থীকে দুই দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ। মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) দুপুরে, চট্টগ্রাম জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফারজানা আক্তারের আদালত শুনানি শেষে তাদের রিমান্ড অনুমোদন করেন। এর আগে, রবিবার (২৪ জুলাই) বিকালে আদালতের কাছে ৭ দিনের রিমান্ডের জন্য আবেদন করেছিল হাটহাজারী থানা পুলিশ।

রিমান্ডে নেয়া পাঁচ জন হলেন; চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী মো. আজিম, নৃ-বিজ্ঞান বিভাগ ২য় বর্ষের নুরুল আবছার বাবু, হাটহাজারী সরকারি কলেজ সমাজবিজ্ঞান বিভাগ ১ম বর্ষের নুর হোসেন শাওন ও ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী মাসুদ রানা ও সাইফুল ইসলাম।

হাটহাজারী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রুহুল আমিন সবুজ বলেন, “হেনস্তার ঘটনায় আটক পাঁচজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য, সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেছিলাম। আদালত আবেদন গ্রহণ করে তাদের দুই দিনের রিমান্ড অনুমোদন করেছেন। এখন অভিযুক্তদের থানায় এনে সেদিনের ঘটনার বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করবো।”

এর আগে, গত শুক্রবার (২২ জুলাই) দিবাগত রাত ও শনিবার (২৩ জুলাই) বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে পাঁচ জনকে গ্রেপ্তার করে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

উল্লেখ্য, গত ১৭ জুলাই রাত ১০টার দিকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রীতিলতা হল সংলগ্ন এলাকায় পাঁচ জন দুর্বৃত্তের হাতে হেনস্তার শিকার হন এক ছাত্রী। ঐ সময় তার সঙ্গে থাকা বন্ধু বাধা দিলে, তাকেসহ ঐ ছাত্রীকে মারধর করে বখাটেরা। পরে তাদের কাপড় চোপড় খুলে ভিডিও ধারণ ও ছাত্রীকে ধষণের চেষ্টা করে।

এই ঘটনায়, ঘটনার শিকার ছাত্রী হাটহাজারী থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে।

গত কয়েকদিন ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ে এই ঘটনার বিচার ও নিরাপদ ক্যাম্পাসের দাবিতে আন্দোলন করে আসছেন শিক্ষার্থীরা।

XS
SM
MD
LG