অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

আগামী ১৮ এপ্রিল, বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফার ভোটে দার্জিলিং ও রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের স্পর্শকাতর বুথে থাকবে কেন্দ্রীয় বাহিনী


প্রথম দফার মতো দ্বিতীয় দফার ভোটেও বহু বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী থাকছে না। শনিবার পর্যন্ত যত কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী আসছে বলে জানা গিয়েছে, তাতে সর্বাধিক ৫৫ থেকে ৬০ শতাংশ বুথে পাহারার জন্য কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ান রাখা সম্ভব। কমপক্ষে ৪০-৪৫ শতাংশ বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী থাকার কোনও সম্ভাবনা নেই। সেই সব বুথে রাজ্য সশস্ত্র পুলিস থাকবে। যা নিয়ে বিরোধীদের তীব্র আপত্তি রয়েছে।

যেসব বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী ও রাজ্য সশস্ত্র পুলিস থাকবে, তার ফোর্স মোতায়েনের পরিকল্পনা করা হয়েছে। সেই পরিকল্পনা জেলায় জেলায় পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। পর্যবেক্ষকদের উপস্থিতিতেই জেলাশাসক ও পুলিস সুপাররা কেন্দ্রীয় বাহিনী ও রাজ্য সশস্ত্র পুলিস মোতায়েন করবেন।

আগামী ১৮ এপ্রিল, বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফার ভোটের জন্য ১৩৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী থাকছে। অর্থাৎ ওই দিন কেন্দ্রীয় বাহিনীর ৯৬৪৮ জন জওয়ান বুথ পাহারার দায়িত্বে থাকবেন। দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি ও রায়গঞ্জ লোকসভার কেন্দ্রের ৫৩৯০টি বুথে ভোটগ্রহণ হবে। মোট ভোটার ৪৯ লক্ষ ৩২ হাজার ৩৪৬ জন। ওই তিনটি কেন্দ্রের মধ্যে জলপাইগুড়ির স্পর্শকাতর বুথের সংখ্যা কম। দার্জিলিং ও রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের স্পর্শকাতর বুথের সংখ্যা ৩০ শতাংশেরও কম। সেই সব বুথে অবশ্যই থাকবে কেন্দ্রীয় বাহিনী। কোনও বুথেই চারজনের কম কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ান থাকবে না।

please wait

No media source currently available

0:00 0:00:58 0:00

XS
SM
MD
LG